দরিদ্রতম জেলার বৃত্ত থেকে উত্তরণ হচ্ছে না
সারাদেশ

দরিদ্রতম জেলার বৃত্ত থেকে উত্তরণ হচ্ছে না

গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি : প্রতিবছর বন্যা,নদীভাঙন,শৈত্যপ্রবাহের মতো প্রাকৃতিক দুর্যোগের পাশাপাশি স্থানীয়ভাবে শিল্প কারখানায় কর্মসংস্থান ও উৎপাদিত পণ্যের বাজার ব্যবস্থার সুযোগ না থাকায় দরিদ্রতম জেলার বৃত্ত থেকে উত্তরণ হচ্ছে না গাইবান্ধা। দেশের দরিদ্রতম ১০টি জেলার মধ্যে রয়েছে গাইবান্ধায় অবস্থান।

আরও পড়ুন : পারমাণবিক ঝুঁকির মুখোমুখি বিশ্ব

সমস্যা চিহ্নিত করে স্থানীয়ভাবে কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টির করতে পারলেই বেরিয়ে আসতে পারে দরিদ্রের বৃত্ত থেকে। গাইবান্ধার চরগুলোতে ব্যাপক ফলন হলেও যোগাযোগের অভাবে কৃষি পণ্য সঠিক মূল্যে বিক্রয় করতে পাচ্ছে না কৃষকরা। প্রায় সকল নাগরিক সুবিধা থেকে বঞ্চিত তারা। চরাঞ্চালের খেটে খাওয়া মানুষগুলোর যোগাযোগের একমাত্র ভরসা নৌকা। তবুও থেমে নেই চরাঞ্চালের দরিদ্র মানুষ।

বর্ষাকালে বন্যায় সব কিছু তলিয়ে গেলেও শুস্ক মৌসুমে নদী শুকিয়ে দুই থেকে তিন মাইল হেটে যেতে হয় নৌ ঘাটে। তখন কৃষি জাত পণ্য মাথায় করে নিয়ে পায়ে হেটে আসা ছাড়া কোন উপায় থাকে না এই গতর খাটা মানুষগুলোর।

আরও পড়ুন : আবারও বাড়ল মুরগির দাম

কাবিলপুর চরের কৃষক হায়দার আলী বলেন, অনেক দুর হাটি আসা নাগে। আমাগরে বিভিন্ন সমস্যা। ফসল বেচপার নিগোর গেলে কোন যানবহন নাই। মাথাত করি নিয়ে যাওন নাগে নাও ঘাটত, নাওত করি নদী পার হওন নাগে, তারপরে অটো বা ভ্যানত করি নিয়ে যাই হাটত। চাষাবাদ করি যা আয় হবো তার চেয়ে খরচে বেশি। তারপর নৌকা করে,পরে অটো বা ভ্যানে কৃষি পণ্য আনতে হয় বিভিন্ন হাট বাজারে।

পরিবহন খরচ পুষিয়ে ও নির্ধারিত ক্রয় বিক্রয় কেন্দ্র না থাকায় বার মাসে তের ফসল ফলিয়েও শ্রমের ন্যায্য মূল্য পাচ্ছে না তারা। যেখানে নেই কোন যানবাহন। আর যদি কেউ অসুস্থ হয়ে পড়ে, তবে তার চিকিৎসা নিয়ে পড়তে হয় চরম বিপাকে।

আরও পড়ুন : বিএনপি হচ্ছে সাম্প্রদায়িক অপশক্তি

তবে নাগরিক সুবিধা নিশ্চিত করার জন্য সরকারি উদ্যোগে পরীক্ষামূলক ভাবে আমার গ্রাম,আমার শহর প্রকল্পের কার্যক্রম শুরু হয়েছে বলে জানান উপজেলা প্রশাসন।

পরিসংখ্যান অনুয়ায়ী জানা যায়, জেলায় ব্রহ্মপুত্র নদ, তিস্তা ও যমুনার ভাঙনের কবলে পড়ে গাইবান্ধা সদর, সুন্দরগঞ্জ, ফুলছড়ি ও সাঘাটা উপজেলার চরাঞ্চলে জেগে উঠেছে ছোট বড় ১৬৫টি চর দ্বীপচর।

এসব চরে প্রায় ৪ লক্ষ মানুষের বসবাস। তাদের একমাত্র পেশা হচ্ছে কৃষি। ষাটোর্ধ বয়সী মুদি দোকাদার মোসলেম আলী বলেন, যামো কাবিলপুর,করি মনোহারি দোকানে কাঁচামালের ব্যবসা। ঘাড়ত নিবার পারি দশ সের কিন্তু হছে ১মণ এখন যাতেই হামার ঠ্যাং ছড়ায় গেল গা। কষ্ট আমগড়ে এহনে কোন যানবহন নাই, অটো নাই, ভ্যান নাই, যাওয়ার অনেক কষ্ট। আগে ঘোড়ার গাড়ি পাওয়া গেইলেও আস্তা না থাকায় এখন আর পাওয়া যায় না।

আরও পড়ুন : শান্তিতে নোবেল পেলো মানবাধিকার কর্মী-সংস্থা

সচেতন মহল বলেন,আমার গ্রাম, আমার শহর প্রকল্পটির উদ্দ্যোগ চরাঞ্চলের প্রয়োগ করা হয় তাহলে চরের মানুষের উৎপাদিত ফসল সহজেই বিক্রি করে কৃষকরা ন্যায্য মূল্য পাবে ও প্রসূতি মায়েদের স্বাস্থ্যসেবাসহ সকল নাগরিক সুবিধা নিশ্চিত হবে।

ফুলছড়ি উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা মোহাম্মদ আলাউদ্দিন বলেন,সরকার পরীক্ষামূলক ভাবে উদ্দ্যোগ গ্রহণ করেছে চর উন্নয়ন বোর্ড নামের একটি প্রকল্প। এ প্রকল্পের মাধ্যমে চরে উৎপাদিত ফসল কৃষকরা যাতে সহযেই বিক্রি করতে পারে সে উদ্দ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে।

আরও পড়ুন : পুলিশের অভিযানে ১৩ আসামী গ্রেপ্তার

এছাড়াও সরকার আমার গ্রাম,আমার শহর নামে আর একটি প্রকল্প গ্রহণ করেছে। যেখানে নিশ্চিত করা হবে কুষি পণ্য ক্রয় বিক্রয় কেন্দ্রসহ সকল নাগরিক সুবিধা। আমার গ্রাম,আমার শহরের উদ্দেশ্য গ্রাম বাংলার প্রাকৃতিক রূপ অটুট রেখে শহরের সুবিধা গ্রামে পৌঁছে দেয়া। যেখানে থাকবে উন্নত রাস্তাঘাট, যোগাযোগ ব্যবস্থা, সুপেয় পানি,আধুনিক স্বাস্থ্যসেবা ও সুচিকিৎসা,মানসম্পন্ন শিক্ষা,উন্নত পয়ঃনিষ্কাশন ও বর্জ্য ব্যবস্থাপনা, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি সরবরাহ বৃদ্ধি, কম্পিউটার ও দ্রুত গতিসম্পন্ন ইন্টারনেট সুবিধা, বৈদ্যুতিক সরঞ্জামসহ মানস¤পন্ন ভোগ্যপণ্যের বাজার সম্প্রসারণের মাধ্যমে আধুনিক শহরের সব সুবিধা।

আরও পড়ুন : গাইবান্ধায় পেঁপে চাষে সফল আব্দুস ছামাদ

প্রসঙ্গত, ১৯৯৯ সালের ২০ মে শহরের বিভিন্ন স্থানে বসবাসকারী অবহেলিত, অসহায় এবং ভাগ্য বিড়ম্বিত ছিন্নমূল মানুষদের গ্রামের আপন ঠিকানায় ফিরিয়ে দেয়ার জন্য ঘরে ফেরা কর্মসূচি গ্রহণ করেছিল সরকার। কিন্তু রহস্যজনক কারণে বন্ধ হয়ে যায় সেই ঘরে ফেরা কর্মসূচি।

সান নিউজ/এইচএন

Copyright © Sunnews24x7
সবচেয়ে
পঠিত
সাম্প্রতিক

সাংবাদিক দেখেই সটকে পড়লেন বুবলী!

বিনোদন ডেস্ক : সাংবাদিকদের আগেই ন...

আপাতত হচ্ছে না পদ্মা ও মেঘনা বিভাগ

সান নিউজ ডেস্ক: ফরিদপুরের পাঁচটি জেলা নিয়ে ‘পদ্মা&rsqu...

পরিবর্তন দাবিতে নাগরিক সংলাপ

নোয়াখালী প্রতিনিধি : সবার মাঝে ঐক...

"সুশিক্ষা ও চাকরি"

বি.খন্দকার : লেখা-পড়া করেই যে দেশ...

হাসপাতালে শবনম ফারিয়া

সান নিউজ ডেস্ক: ছোট পর্দার জনপ্রিয় অভিনেত্রী শবনম ফারিয়া শার...

যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুক হামলায় নিহত ১

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের জর্জিয়ার একটি শপিংমলে বন্দ...

সোমবার কখন কোথায় লোডশেডিং

সান নিউজ ডেস্ক: দেশের জ্বালানির সংকটে বিদ্যুৎ উৎপাদন কমিয়ে দ...

দুপুরে এসএসসির ফল প্রকাশ

সান নিউজ ডেস্ক : দেশের মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) ও...

সোমবার রাজধানীর যেসব মার্কেট বন্ধ

সান নিউজ ডেস্ক: প্রতি সপ্তাহের একেক দিন বন্ধ থাকে রাজধানীর ব...

বিশ্বে কমেছে শনাক্ত ও মৃত্যু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাসে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ৪...

লাইফস্টাইল
বিনোদন
sunnews24x7 advertisement
খেলা