আন্তর্জাতিক

যে নারী করোনাভাইরাসের আবিষ্কারক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

মানব শরীরে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের অস্তিত্ব আবিষ্কারক একজন নারী। যিনি কিনা মাত্র ১৬ বছর বয়সেই ছেড়েছিলেন স্কুল। আর এই আবিস্কারকের বাবা ছিলেন স্কটল্যান্ডের একজন বাস চালক।

জুন আলমেইডা নামের এই আবিষ্কারক ভাইরাস ইমেজিংয়ের একজন অগ্রণী ব্যক্তিত্ব হয়ে উঠেছিলেন। ১৯৬৪ সালে লন্ডনের সেন্ট থমাস হাসপাতালের গবেষণাগারে প্রথম করোনাভাইরাস শনাক্ত করেছিলেন ড. আলমেইডা।

লেখক জর্জ উইন্টারের তথ্য অনুযায়ী, আলমেইডা তার স্বামীসহ তাদের মেয়ে কানাডার টরেন্টোতে পাড়ি জমান। সেখানে অন্টারিও ক্যান্সার ইন্সটিটিউটে ড. আলমেইডা একটি ইলেকট্রনিক মাইক্রোস্কোপ নিয়ে তার অসামান্য দক্ষতার বহিঃপ্রকাশ ঘটান। তিনি এমন একটি পদ্ধতির সূচনা করেছিলেন যা অ্যান্টিবডি সংহত করার মাধ্যমে ভাইরাসগুলি আরও পরিষ্কারভাবে দেখা সম্ভব হয়।

১৯৬৪ সালে তাকে লন্ডনের সেন্ট থমাস হাসপাতাল মেডিকেল কলেজে কাজ করার জন্য প্রলুব্ধ করে যুক্তরাজ্যে ফিরিয়ে আনা হয়। ফিরে আসার পর তিনি ডক্টর ডেভিড টাইরেলের সঙ্গে কাজ করতে শুরু করেন, যিনি উল্টশ্যায়ারের সালসবিউরিতে সাধারণ ঠাণ্ডা নিয়ে গবেষণা করছিলেন।

উইন্টার বলছেন, ডক্টর টাইরেল স্বেচ্ছাসেবকদের নিয়ে অনুনাসিক ধোঁয়ার ওপর গবেষণা করছিলেন। তাদের দল দেখতে পায় যে, তারা বেশ কয়েকটি সাধারণ সর্দি-কাশির ভাইরাস বৃদ্ধি করতে পারছিলেন, কিন্তু সবগুলো নয়।

তার মধ্যে একটি বিশেষভাবে নজরে আসে। সেটির নাম দেয়া হয়েছিল বি-৮১৪, যা এসেছিল ১৯৬০ সালে সালের একটি বোর্ডিং স্কুলের একজন ছাত্রের কাজ থেকে। তারা দেখতে পান, সাধারণ সর্দি-কাশির কয়েকটি লক্ষণ স্বেচ্ছাসেবীদের মধ্যে তৈরি করতে পারলেও, সেগুলো তাদের নিয়মিত কোষের ভেতরে আর বেড়ে উঠতে পারে না।

তবে স্বেচ্ছাসেবীদের প্রত্যঙ্গের মধ্যে কিছু বৃদ্ধি দেখিয়েছিল। সেটা দেখে অবাক হয়ে ড. টাইরেল ভাবলেন, এটা কোন বৈদ্যুতিক মাইক্রোস্কোপ দিয়ে পরীক্ষা করে দেখা উচিত। তারা সেসব নমুনা জুন আলমেইডাকে পাঠান, যিনি নমুনার মধ্যে ভাইরাস কণা দেখতে পান। তিনি যা শনাক্ত করেছিলেন, সেটি বিশ্বে করোনাভাইরাস হিসাবে পরিচিত হয়ে ওঠে।

বি-৮১৪ আবিষ্কারের বিষয়ে ব্রিটিশ মেডিকেল জার্নালে ১৯৬৫ সালে প্রকাশিত হয়। তিনি করোনাভাইরাসের প্রথম যে চিত্র দেখেছিলেন, সেটি প্রকাশিত হয় দুই বছর পরে জেনারেল ভাইরোলজি জার্নালে। ২০০৭ সালে, ৭৭ বছর বয়সে জুন আলমেইডা মৃত্যুবরণ করেন।

মৃত্যুর তের বছর পরে তিনি তার সেই পথিকৃৎ কাজের জন্য অবশেষে স্বীকৃতি পাচ্ছেন, যা বর্তমানে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া ভাইরাসটি সম্পর্কে বুঝতে সহায়তা করছে। সূত্র: বিবিসি

সান নিউজ/আরএইচ

Copyright © Sunnews24x7
সবচেয়ে
পঠিত
সাম্প্রতিক

ঘূর্ণিঝড়ে সাতক্ষীরায় ৭ লাখ গ্রাহক বিদ্যুৎবিহীন

মো. মাজহারুল ইসলাম, সাতক্ষীরা: ঘূর্ণিঝড় রেমালের জেরে গত দুই...

মঙ্গলবার রাজধানীর যেসব মার্কেট বন্ধ

সান নিউজ ডেস্ক: প্রতি সপ্তাহের একেক দিন বন্ধ থাকে রাজধানীর ব...

বিশ্বকাপের পূর্ণাঙ্গ সূচি

স্পোর্টস ডেস্ক : যুক্তরাষ্ট্র ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের মাটিতে আর মা...

ঘূর্ণিঝড়ের ক্ষয়ক্ষতি নিরূপণের নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক : দেশে ঘূর্ণিঝড় রেমালের ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ...

হত্যা মামলায় ১০ জনের যাবজ্জীবন

জেলা প্রতিনিধি : জয়পুরহাটে সম্পত্তি নিয়ে বিরোধের জেরে সাইদুল...

কুয়াকাটা সৈকতে ভেসে এলো মৃত হরিণ

নিনা আফরিন, পটুয়াখালী: পটুয়াখালীর কুয়াকাটা সৈকতে একটি মৃত...

জুয়া খেলায় বাঁধা দেয়ায় হামলা, আহত ২

রংপুর ব্যুরো: রংপুরের মিঠাপুকুরে...

চলছে তৃতীয় ধাপের ভোট গণনা

নিজস্ব প্রতিবেদক: ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের তৃতীয় ধাপে ৮৭...

নানা সমস্যায় জর্জরিত শান্তিপুর উচ্চ বিদ্যালয়

আবু রাসেল সুমন, খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি:

বিপিসিসিআই’র নতুন সভাপতি হুমায়ুন রশীদ

নিজস্ব প্রতিবেদক: বাংলাদেশ-ফিলিপা...

লাইফস্টাইল
বিনোদন
sunnews24x7 advertisement
খেলা