ছবি: সংগৃহীত
ঐতিহ্য ও কৃষ্টি
ইতিহাসের এই দিনে

মাইকেল ফ্যারাডে’র প্রয়াণ

নিজস্ব প্রতিবেদক: আজকের ঘটনা কাল অতীত। প্রত্যেকটি অতীত সময়ের স্রোতে এক সময় হয়ে উঠে ইতিহাস। পৃথিবীর বয়স যতোই বাড়ে ইতিহাস ততোই সমৃদ্ধ হয়। এই সমৃদ্ধ ইতিহাসের প্রতিটি ঘটনার প্রতি মানুষের আগ্রহ চিরাচরিত। ইতিহাসের প্রতিটি দিন তাই ভীষণ গুরুত্ব পায় সকলের কাছে।

আরও পড়ুন: আইভি রহমান’র প্রয়াণ

সান নিউজের পাঠকদের আগ্রহকে গুরুত্ব দিয়ে সংযোজন করেছে নতুন আয়োজন ‘ইতিহাসের এই দিন’।

শুক্রবার (২৫ আগস্ট), ১০ ভাদ্র ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ৮ সফর ১৪৪৪ হিজরী। এক নজরে দেখে নিন ইতিহাসের এ দিনে ঘটে যাওয়া উল্লেখযোগ্য ঘটনা, বিশিষ্টজনের জন্ম-মৃত্যুদিনসহ গুরুত্বপূর্ণ আরও কিছু বিষয়।

আরও পড়ুন: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কালো দিবস

ঘটনাবলী:

৯৫ - মুসলমানদের বিরুদ্ধে খ্রিস্টানদের ক্রুসেডের যুদ্ধ শুরু হয়।

১৮২৫ - উরুগুয়ে স্বাধীনতা ঘোষণা করে।

১৮৩০ - বেলজিয়াম নেদারল্যান্ডসের বিরুদ্ধে বিদ্রোহ ঘোষণা করে।

১৮৯৬ - উপেন্দ্রনাথ মুখোপাধ্যায়ের সম্পাদনায় সাপ্তাহিক ‘বসুমতী’ প্রথম প্রকাশিত হয়।

১৯১৯ - লন্ডন ও প্যারিসের মধ্যে নিয়মিত বিমান চলাচল শুরু হয়।

১৯২০ - এথেলডা ব্লেবট্রেই প্রথম মার্কিন নারী হিসেবে অলিম্পিক স্বর্ণপদক জয় করেন।

১৯২১ - মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র জার্মানির সাথে শান্তিচুক্তি করে।

১৯৪৪ - জার্মান অধিকার থেকে প্যারিস মুক্ত হয়।

১৯৬০ - রোমে অলিম্পিক ক্রীড়া শুরু হয়।

১৯৭২ - বাংলাদেশকে স্বাধীন দেশ হিসেবে স্বীকৃতি দেয় উগান্ডা।

১৯৭৫ - জেনারেল জিয়াউর রহমান বাংলাদেশের চিফ অব আর্মি স্টাফ হিসেবে নিয়োগ প্রাপ্ত হন।

১৯৮৯ - একটানা ৪৫ বছর কমিউনিস্ট শাসনের পর পোল্যান্ডে প্রধানমন্ত্রী শাসিত সরকার প্রর্বতন।

১৯৯১ - সোভিয়েত ইউনিয়নভুক্ত প্রজাতন্ত্র বাইলোরাশিয়া স্বাধীনতা ঘোষণা করে।

১৯৯২ - চীন ও দক্ষিণ কোরিয়ার মধ্যে কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপিত হয়।

আরও পড়ুন: ইংল্যান্ডে গৃহযুদ্ধ শুরু

জন্মদিন:

১৫৩০ - প্রথম রাশিয়ান জার চতুর্থ আইভান।

১৮৫০ - পাভেল আক্সেলরদ, রুশ মেনশেভিক ও সমাজ-গণতন্ত্রী।

১৮৭২ - স্যার আবদুল করিম গজনভি, বাঙালি রাজনীতিবিদ, অবিভক্ত বাংলার মন্ত্রী।

১৯০০ - সজনীকান্ত দাস, বাঙালি কবি, সাহিত্য সমালোচক ও শনিবারের চিঠি সাহিত্য পত্রিকার সম্পাদক।(মৃ.১১/০২/১৯৬২)

১৯০৬ - জিম স্মিথ, ইংল্যান্ডের ক্রিকেটার। (মৃ.০৮/০২/১৯৭৯)

১৯১১ - ভো নগুয়েন গিয়াপ ভিয়েতনামের যুদ্ধজয়ী বীর।

১৯১৬ - নোবেলজয়ী মার্কিন অণুজীব বিজ্ঞানী ফ্রেডেরিক রবিনস।

১৯৩০ - স্যার থমাস শন কনারি, একাডেমি পুরস্কার, গোল্ডেন গ্লোব, বাফটা পুরস্কার বিজয়ী স্কটল্যান্ডীয় অভিনেতা ও চলচ্চিত্র প্রযোজক। (মৃ.৩১/১০/২০২০)

১৯৪৭ - প্রবাল চৌধুরী বাংলাদেশি সঙ্গীতশিল্পী।

১৯৬২ - তসলিমা নাসরিন, বাংলাদেশের বহুল আলোচিত ও বিতর্কিত নারীবাদী সাহিত্যিক।

আরও পড়ুন: বিশ্ব প্রবীণ নাগরিক দিবস

মৃত্যুবার্ষিকী:

১৭৭৬ - ডেভিড হিউম, স্কটিশ দার্শনিক, ইতিহাসবিদ,অর্থনীতিবিদ এবং প্রাবন্ধিক। (জ.০৭/০৫/১৭১১)

১৮১৯ - জেমস ওয়াট ব্রিটিশ প্রকৌশলী, ১৭৬৯ সালে বাষ্পীয় ইঞ্জিন আবিষ্কারক। (জ.১৯/০১/১৭৬৯)

১৮২২ - উইলিয়াম হার্শেল, জার্মান বংশোদ্ভুত ইংরেজ জ্যোতির্বিদ এবং সুরকার।

১৮৬৭ - মাইকেল ফ্যারাডে, ইংরেজ রসায়নবিদ এবং পদার্থবিজ্ঞানী। (জ.২২/০৯/১৭৯১)

মাইকেল ফ্যারাডে (সেপ্টেম্বর ২২, ১৭৯১ - আগস্ট ২৫, ১৮৬৭) একজন ইংরেজ রসায়নবিদ এবং পদার্থবিজ্ঞানী ছিলেন। তড়িৎচুম্বক তত্ত্ব এবং তড়িৎ রসায়নের ক্ষেত্রে তার গুরুত্বপূর্ণ অবদান রয়েছে।

তিনি প্রতিষ্ঠা করেন যে, চুম্বকত্ব আলোকে প্রভাবিত করে এবং এই ২ টি প্রত্যক্ষ ঘটনার মধ্যে একটি অন্তর্নিহিত সম্পর্ক রয়েছে। তার আবিষ্কারের প্রধান বিষয়বস্তুগুলোর মধ্যে রয়েছে তড়িৎচুম্বক আবেশ, ডায়া ম্যাগনেটিজম ও তড়িৎ বিশ্লেষণ।

আরও পড়ুন: ভয়াল গ্রেনেড হামলা দিবস

১৭৯১ সালের ২২ সেপ্টেম্বর ইংল্যান্ডে নিউইংটন বাটস অঞ্চলে ফ্যারাডের জন্ম। তার বাবা জেমস ছিলেন একজন কামার। বাড়ির কাছে একটি প্রাথমিক স্কুল এ কিছুদিন পড়াশোনা করছেন ফ্যারাডে।

তারপর আর্থিক অনটনের কারণে মাঝপথেই স্কুল ছেড়ে দিতে হয়। আর কোনোদিন স্কুলে যাওয়ার সৌভাগ্য হয়নি তার।

আরও পড়ুন: বিশ্ব মশা দিবস

পরিবারের আর্থিক অবস্থার কথা চিন্তা করে তিনি একটি বইয়ের দোকানে কাজ নেন। সেখান থেকে বিভিন্ন পত্রপত্রিকা মানুষের বাড়ি গিয়ে গিয়ে বিক্রি করাই ছিল তার কাজ।

এক বছর কাজ করার পর তাকে বই বাঁধাইয়ের কাজ দেওয়া হয়, যাতে কষ্ট আরেকটু কম হয়। এই কাজের ফাঁকে পড়ার সুযোগ বেশি। বিজ্ঞানবিষয়ক বইগুলো তাকে বেশি আকর্ষণ করে।

আরও পড়ুন: জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা

কিছুদিনের মধ্যে তিনি তার বাড়িতে বিজ্ঞানের গবেষণার জন্য ছোট একটা গবেষণাগার তৈরি করে ফেলেন। হাত খরচের পয়সা বাঁচিয়ে গবেষণার জন্য একটা দুইটা জিনিস কিনতেন। আবার অনেক জিনিস ফেলে দেওয়া আবর্জনা থেকে তুলে নিয়ে নিজে তৈরি করে নিতেন।

একদিন হঠাৎ করে ২১ বছর বয়সে তিনি স্যার হামফ্রে ডেভির সাথে কাজ করার সুযোগ পেলেন। হামফ্রে তাকে ল্যাবরেটরির বোতল ধোয়ার কাজ দিলেন। কাজের ফাঁকেই তিনি হামফ্রের গবেষণা মনোযোগ সহকারে দেখতেন।

আরও পড়ুন: জহির রায়হান’র জন্ম

ফ্যারাডের গবেষণাকে মূলত ৩ টি অংশে ভাগ করা যায়। তিনি প্রথমে রসায়ন নিয়ে গবেষণা করতেন। ধীরে ধীরে চুম্বক শক্তি সংক্রান্ত গবেষণার প্রতি মনোযোগী হয়ে ওঠেন।

তিনি প্রধানত তড়িৎ ও চুম্বক শক্তির মধ্যেকার সম্পর্ক নির্ণয় এবং তড়িৎ শক্তির সাহায্যে কীভাবে যান্ত্রিক শক্তি লাভ করা সম্ভব, তা নিয়ে ব্যাপক অনুসন্ধান করেন এবং এই কাজে অনেকখানি সাফল্য লাভ করেন।

আরও পড়ুন: সুভাষচন্দ্র বসু’র প্রয়াণ

এই সময় বিজ্ঞানী ওয়ালস্টন একই বিষয় নিয়ে গবেষণা করছিলেন। তিনি ফ্যারাডের বিরুদ্ধে তার গবেষণার বিষয়বস্তু চুরির অভিযোগ আনেন। যদিও অভিযোগ মিথ্যা বলে প্রমাণিত হয়, তবুও ফ্যারাডে নিজেকে বিদ্যুৎ সংক্রান্ত গবেষণা থেকে সরিয়ে আনেন।

তারপর তিনি রসায়ন শাস্ত্রের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে অনুসন্ধান করতেন।

দীর্ঘ ৭ বছর পর ১৮৩১ সালে আবার ফিরে এলেন তিনি তার তড়িৎ চুম্বক গবেষণায়। অবশেষে কিছুদিনের মধ্যেই তিনি ডায়নামো প্রস্তুত করে ফেললেন। তিনি এই মেশিনের নাম দেন ম্যাসোনো ইলেক্ট্রিক মেশিন।

আরও পড়ুন: মুর্তজা বশীর’র জন্ম

তারপর ১৮৪১ সালে তিনি আবিষ্কার করে ফেললেন তার যুগান্তকারী তত্ত্ব আলোর ওপর চুম্বকের প্রভাব। এই আবিষ্কারের উপর ভিত্তি করেই জেমস ক্লার্ক ম্যাক্সওয়েল বার করলেন তার বিখ্যাত তড়িচ্চুম্বকীয় সমীকরণ। আমরা এখন যে বিদ্যুৎ সুবিধা ভোগ করছি, তা মূলত মাইকেল ফ্যারাডেরই আবিষ্কার।

১৮৯৭ - মুর্শিদাবাদের কাশিম বাজার রাজের মহারাণী স্বর্ণময়ী। (জ.১৮২৭)

১৯০০ - ফ্রিড‌রিখ‌ ভিল‌হেল্ম নিচে, জার্মান দার্শনিক, কবি ও ভাষাতত্ত্ববিদ।

১৯০৮ - অঁতোয়ান অঁরি বেক্যরেল, ফরাসি পদার্থবিজ্ঞানী, নোবেল পুরস্কার বিজয়ী। (জ. ১৮৫২)

১৯৩০ - অনুজাচরণ সেন, ব্রিটিশ বিরোধী স্বাধীনতা আন্দোলনের একজন অন্যতম ব্যক্তিত্ব এবং অগ্নিযুগের শহীদ বিপ্লবী। (জ.১৯০৫)

১৯৬৭ - পল মুনি, মার্কিন মঞ্চ ও চলচ্চিত্র অভিনেতা। (জ. ১৮৯৫)

১৯৭৬ - সাহিত্যে যুগ্মভাবে নোবেলজয়ী সুইডিশ কথাশিল্পী আইভিন্ড জনসন।

২০০৭ - তারাপদ রায়, হাস্যরসাত্মক তথা কৌতুকরসবোধে সংপৃক্ত রচনার জন্য সুপরিচিত বাঙালি লেখক,কবি ও প্রাবন্ধিক। (জ.১৭/১১/১৯৩৬)

২০১২ - নিল আর্মস্ট্রং, মার্কিন নভোচারী, চাঁদে অবতরনকারী প্রথম মানুষ। (জ.০৫/০৮/১৯৩০)

২০২১ - শুভঙ্কর বন্দ্যোপাধ্যায়, প্রখ্যাত বাঙালি তবলা বাদক। (জ.১৯৬৬)।

আরও পড়ুন: মুদ্রণ যন্ত্র আবিষ্কার

দিবস:

স্বাধীনতা দিবস (ফ্রান্স)

স্বাধীনতা দিবস (উরুগুয়ে)

সান নিউজ/এনজে

Copyright © Sunnews24x7
সবচেয়ে
পঠিত
সাম্প্রতিক

সাতক্ষীরায় বইছে প্রচন্ড দমকা হাওয়া

মো. মাজহারুল ইসলাম, সাতক্ষীরা: ব্...

ভালুকায় ভয়ংকর কিশোর গ্যাং!

ভালুকা (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি: ময়...

সাবেক ওসির বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা 

মো. মাজহারুল ইসলাম, সাতক্ষীরা: ৮...

আইপিএল চ্যাম্পিয়ন কলকাতা

স্পোর্টস ডেস্ক : ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) ফাইনালে স...

প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া স্থগিত

নিজস্ব প্রতিবেদক : সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় ধাপের শি...

গাজায় নিহত ছাড়াল ৩৬ হাজার 

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় ইসরায়েলের বর্বর অভি...

ঘূর্ণিঝড়ের ক্ষয়ক্ষতি নিরূপণের নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক : দেশে ঘূর্ণিঝড় রেমালের ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ...

শাহরুখের ছোট ছেলের মাসিক খরচ

বিনোদন ডেস্ক: বলিউড বাদশাহ শাহরুখ...

ঠাকুরগাঁওয়ে রেজিয়া হত্যায় গ্রেফতার ২

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি : ঠাকুরগাঁওয়ে হত্যাকান্ডের ২৪ ঘন্টার মধ্...

লাইফস্টাইল
বিনোদন
sunnews24x7 advertisement
খেলা